বিয়ে না করা ইসলামে অপছন্দনীয়

আবদুল্লাহ্ ইবনু মাস‘ঊদ (রাঃ) হতে বর্ণিত (তাওহিদ প্রকাশনী- বুখারী- ৫০৭৫ নং হাদিস)।

তিনি বলেন,

”আমরা রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-এর সঙ্গে জিহাদে অংশ নিতাম; কিন্তু আমাদের কোন কিছু ছিল না অর্থাৎ সম্পদ ছিলনা”।

সুতরাং আমরা রাসূলুল্লাহ্ (সঃ)-এর কাছে বললাম, আমরা কি খাসি হয়ে যাব (অর্থাৎ বিয়ে না করে সারা জীবন কাটাবো)?

তিনি আমাদেরকে এ থেকে নিষেধ করলেন, কোন মহিলার সঙ্গে একটি কাপড়ের বদলে হলেও বিয়ে করার অনুমতি দিলেন এবং আমাদেরকে এই আয়াত পাঠ করে শুনালেনঃ
‘‘ওহে ঈমানদারগণ! পবিত্র বস্তুরাজি যা আল্লাহ্‌ তোমাদের জন্য হালাল করে দিয়েছেন সেগুলোকে হারাম করে নিও না আর সীমালঙ্ঘন করো না, অবশ্যই আল্লাহ্‌ সীমালঙ্ঘনকারীদের ভালবাসেন না।’’ (আল-মায়িদাহ ৫:৮৭)

বিয়ে না করা ইসলামে অপছন্দনীয় | কি বলছে ইসলাম, বিয়ে কি করতেই হবে? বিয়ে না করা ইসলামে অপছন্দনীয় | কি বলছে ইসলাম, বিয়ে কি করতেই হবে?
অতএব আমরা বুঝতে পারলাম রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বিয়ে না করে থাকাকে নিষেধ করেছেন এবং অল্প দেনমোহরের বিনিময়ে হলেও বিয়ে করতে বলেছেন।
আমরা অনেক সময় মনে করি আমারতো কোন টাকা পয়সা নাই, তাই আর জীবনে বিয়ে করবোনা। কারন বিয়ে করতে গেলে যে পরিমান টাকা পয়সা লাগে তা আমাদের নাই। কিন্তু আমাদেরকে রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বিয়ে না করে থাকাকে নিষেধ করেছেন। আর মহান আল্লাহ যেহেতু বিয়েকে হালাল ঘোষনা করেছেন তাই এ পবিত্র বিষয়কে আমরা যেন হারাম করে না নেই। কারন তার প্রতিটি সিদ্ধান্ত আমাদের জন্য কল্যাণকর এবং তিনি অবশ্যই তার হুকুম পালন কারীকে সাহায্য করবেন।
মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীন আমাদের বিয়েতে এসব সুন্নাহ এর উপর আমল করার তৌফিক দান করুন।

 

Share on

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.